Surah Al-Mulk(সূরা আল মুলক) - Slunečnice.cz Hlavní navigace

 Surah Al-Mulk(সূরা আল মুলক) 1.0

Pro hodnocení programu se prosím nejprve přihlaste

Staženo 0 ×
Zdarma

Sdílet

পবিত্র কোরআন শরীফের একটি তাৎপর্যপূর্ণ সূরা হল সূরা মূলক। মাত্র কিছু সময় ব্যয় করে এর তেলাওয়াত ও অর্থ শুনতে পারবেন আমাদের এপসটিতে। কোন রকম ইন্টারনেট সংযোগ এর প্রয়োজন নেই সূরাটি শোনার জন্য।

আমাদের সূরা মূলক এপ্সটিতে যা যা পাবেনঃ

- সূরা মূলক এর অডিও।
- সূরা সূরা মূলকের বাংলা উচ্চারণ, অর্থ ও আরবি একসাথে।
- Surah-Al-Mulk with English Spelling and Translation.
- সূরা সূরা মুলক বাংলা অনুবাদ।
- সূরা মুলক আরবি অনুবাদ।
- সূরা মুলক আরবি উচ্চারণ।
- Surah-Al-Mulk with English Spelling.
- Surah-Al-Mulk with English Translation.
- সূরা মুলক এর ফযিলত সমূহ।


সূরা আল মুলক নিয়ে কিছু কথাঃ

নামকরণঃ

সূরার প্রথমে আয়াতংশ (তাবারকাল্লাযি বিয়াদিহিল মুল্ক ) এর আল মুল্ক শব্দটিকে এ সূরার নাম হিসেবে গ্রহন করা হয়েছে ।

নাযিলঃ

এ সূরাটি কোন সময় নাযিল হয়েছিলো তা কোন নির্ভরযোগ্য বর্ণনা থেকে জানা যায় না। তবে বিষয়বস্তু ও বর্ণনভংগী থেকে সুষ্পষ্ট বুঝা যায় যে, সূরাটি মক্কী জীবনের প্রথম দিকে অবতীর্ণ সূরা সমূহের অন্যতম।

বিষয়বস্তুঃ

এ সূরাটিতে একদিকে ইসলামী শিক্ষার মূল বিষয়সমূহ তুলে ধরা হয়েছে। অন্যদিকে যেসব লোক বেপরোয়া ও অমনোযোগী ছিল তাদেরকে অত্যন্ত কার্যকরভাবে সজাগ করে দেয়া হয়েছে। মক্কী জীবনের প্রথম দিকে নাযিল হওয়া সূরাসমূহের বৈশিষ্ট হলো, তাতে ইসলামের গোটা শিক্ষা ও রসূলুল্লাহ সল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামকে নবী করে পাঠানোর উদ্দেশ্য সবিস্তারে নয় বরং সংক্ষেপ্তভাবে বর্ণন করা হয়েছে। ফলে তা ক্রমান্বয়ে মানুষের চিন্তা-ভাবনায় বদ্ধমূল হয়েছে। সেই সাথে মানুষের বেপরোয়া মনোভাব ও অমনোযোগিতা দূর করা, তাকে ভেবে চিন্তে দেখতে বাধ্য করা এবং তার ঘুমন্ত বিবেককে জাগিয়ে তোলার প্রতি বিশেষভাবে গুরুত্ব আরোপ করা হয়েছে।


ফযিলতঃ

তিরমিজি শরীফে ইবনে আব্বাস (রাঃ) হইতে বর্ণিত আছে, সাহাবারা কোন এক স্হানে তাবু ফেলিয়াছিলেন । উনারা জানিতেন না যে, সেখানে নিকটেই একটি কবর আছে । হঠাৎ উনারা শুনিতে পাইলেন যে, সেখানে কেহ তাবারাকারাল্লাজি সূরা পাঠ করিতেছে । এই ঘটনা হুজুর (সাঃ) এর নিকট প্রকাশ করা হইলে হুজুর (সাঃ) বলিলেন, এই সূরা কবর আযাব হইতে ফিরাইয়া রাখে এবং নাজাত দেয় ।

হুজুর (সাঃ) বলেন, কোরআন শরীফে ত্রিশ আয়াত বিশিষ্ট এক সূরা আছে যাহা আপন পাঠকের জন্য গুনাহ মাফ হওয়া পর্যন্ত সুপারিশ করিতে থাকে । উহা সূরা তাবারাকাল্লাজি । (আবু-দাউদ)

এই সূরা সম্পর্কে হুজুর (সাঃ) বলেন, আমার মন চায় যে সূরা মূলক সমস্ত উম্মতের অন্তরেই থাকুক । একটি রেওয়াতে আসিয়াছে, যে ব্যাক্তি সূরা মূলক ও আলিম-লাম-মিম সিজদা মাগরিব ও এশার মাঝখানে পড়িবে সে যেন শবে ক্বদরে থাকিয়া এবাদত করিল । অন্যত্র আছে, যে এই সূরা পড়িল তাহার জন্য ৭০টি নেকী লেখা হইবে ও ৭০টি গুনাহ মাফ হইবে ।

Pro hodnocení programu se prosím nejprve přihlaste

Staženo
0 ×

TIP: Stahují se vám programy pomalu? Změřte si rychlost svého internetového připojení.